বসুন্ধরা কিংস ফ্যানদের অভ্যর্থনায় সিক্ত লংকান ফুটবল দল

দক্ষিণ এশিয়ার বিশ্বকাপ হিসেবে বিবেচিত আসন্ন সাফ গেমসকে সামনে রেখে গতকাল বাংলাদেশে পৌঁছেছে শ্রীলঙ্কান ফুটবল দল। আগামী ২৯ তারিখ শেখ কামাল ষ্টেডিয়াম, নীলফামারীতে অনুষ্ঠিতব্য প্রীতি ম্যাচের দুই দিন আগেই সোমবার দুপুরে সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণ করে দ্বীপ রাষ্ট্র শ্রীলঙ্কা থেকে আগত দলটি। বিমান বন্দরে স্বাগত জানান নীলফামারী পৌরসভা মেয়র সহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ। বিমানবন্দর থেকে বের হওয়ার পর শতশত শিক্ষার্থী অভিবাদন ও ফুলেল অভ্যর্থনা জানান পুরো দলকে। এছাড়াও বাংলাদেশ ফুটবলের সাড়া জাগানো ক্লাব বসুন্ধরা কিংসের পতাকা হাতে নিয়ে বসুন্ধরা কিংস সমর্থকগোষ্ঠী ফুলেল শুভেচ্ছা জানান পাকির আলী শিষ্যদের। বিমানবন্দর থেকে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থার মধ্য দিয়ে পুরো দলকে রংপুরের একটি হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে আর এক দফা স্বাগত জানান এ্যাড. মাহবুবুল হক তিতু- সভাপতি বসুন্ধরা কিংস রংপুর জেলা কমিটি ও শামিম খান মিসকিন- কোষাধ্যাক্ষ রংপুর জেলা ফুটবল এসোসিয়েশন সহ স্থানীয় সংগঠকবৃন্দ। ম্যাচকে ঘিরে চার স্তরের নিরাপত্তা ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সৈয়দপুর সার্কেল) অশোক কুমার পাল। এদিকে ম্যাচ নিয়ে মধুর সমস্যায় পড়েছেন অারিফ হোসেন মুন সহ দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা। একেকটি টিকেট যেন সোনার হরিণ। দর্শকধারণ ক্ষমতার চেয়েও বহুগুন দর্শক টিকেটের জন্য হাহাকার করছেন। ইতিমধ্যেই বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা প্রীতি ম্যাচকে ঘিরে পুরো উত্তরাঞ্চলে সাজ সাজ রব বিরাজ করছে। এ অঞ্চলে প্রথমবারের মত অনুষ্ঠিতব্য আন্তর্জাতিক ম্যাচকে নিয়ে উৎসাহ ও আগ্রহের কমতি নেই দর্শকদের। ইতিহাসের সাক্ষী হতে এ অঞ্চলের প্রত্যেক ফুটবলপ্রেমী প্রতীক্ষার প্রহর গুনছেন।