জয় দিয়ে ইউরোপা লীগ শুরু করলো ইউনাইটেড

0
90

উয়েফা ইউরোপা লীগে গ্রুপ এল এর ম্যাচে জয় পেয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। কাজাখস্তান লীগের দল এফসি আস্তানকে ১-০ গোলে পরাজিত করে ওলে গানার সোলসারের শিষ্যরা। দলের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন ম্যাসন গ্রীনউড।

ইউরোপা লীগের গ্রুপ পর্বে নিজেদের প্রথম ম্যাচে সহজ প্রতিপক্ষ পাওয়ার দলের গুরুত্বপূর্ণ অনেক খেলোয়াড়কেই বিশ্রাম দেন ইউনাইটেড কোচ। বিশেষ ভাবে নজরে পড়ে ইউনাইটেডের একাডেমিতে বেড়ে উঠা পাঁচ জন খেলোয়াড় এই দিন মূল একাদশে সুযোগ পান। এছাড়া গোলপোস্টের নিচে অনেকদিন পর আবারো সুযোগ পান আর্জেন্টিনার সার্জিও রোমেরো।

তরুনদের নিয়ে গড়া একাদশ প্রথম থেকেই আস্থার প্রতিদান দেন বল পজিশন ধরে রেখে বার বার হানা দেন এফসি আস্তানার রক্ষণদূর্গে। ম্যাচের তৃতীয় মিনিটেই বক্সের বাইরে থেকে নেয়া ফ্রেড্রের গতিময় শট বারে লেগে প্রতিহত না হলে শুরুতেই এগিয়ে যেতে পারতো ইউনাইটেড। খেলার ১২ তম মিনিটে কর্নার থেকে আসা একটি বল বক্সের ভিতর ভালো জায়গায় পান রাশফোর্ড। তবে আস্তানার গোলরক্ষক এরিকের দক্ষতায় গোল বঞ্চিত হতে হয় তাকে। এর তিন মিনিটি পর গ্রীনউডের বাকানো শট অল্পের জন্য লক্ষভ্রষ্ট হয়।

ম্যাচের কুড়ি মিনিটে আবারো আস্তানা গোলরক্ষক এরিকের ঝলক। রাশফোর্ডে শট আবারো ফিরিয়ে দিয়ে দলকে রক্ষা করেন তিনি। এতোগুলো সুযোগ হাতছাড়া করান গোলশূন্যভাবেই বিরতিতে যেতে হয় সোলসারের শিষ্যদের।

বিরতি থেকে ফিরেই আবারো আক্রমনে উঠে রেড ডেভিলসরা। ৪৭ তম মিনিটে রোহোর গড়ানো ক্রসে পা ছোয়াতে ব্যর্থ হন ইউনাইটেডের দুজন খেলোয়াড়। ম্যাচে ৬০ মিনিটে ভালো একটি সুযোগ তৈরি করেন আস্তানার খেলোয়াড়রা। তবে বক্সের ভিতরে আসা ক্রসে মাথা ছোঁয়াতে ব্যর্থ হন দলের স্ট্রাইকার। এরপর ইউনাইটেডের আরো কিছু সম্ভাবনাময় আক্রমন রুখে দেন আস্তানার গোলরক্ষক ও ডিফেন্ডাররা।

ম্যাচের কাক্ষিত গোলটি আসে ৭৩ মিনিটে। অসাধারন স্কিলে কোনাকুনি শটে বল তিন কাঠির নিচে পৌঁছে দিয়ে ইউনাইটেডকে লিড এনে দেন গ্রীনউড। এরপর ম্যাচে আর কোন গোল না হলে ১-০ ব্যবধানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

একই গ্রুপের অন্য খেলায় এফকে পার্টিজন ও এ জেড অলকমার ২-২ গোলে ড্র করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here